BDpress

বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীতে ৩ দিনের অনুষ্ঠান

জেলা প্রতিবেদক

অ+ অ-
বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীতে ৩ দিনের অনুষ্ঠান
২৫ বৈশাখ (মঙ্গলবার) বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের ১৫৭ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুষ্টিয়ার শিলাইদহ কুঠিবাড়ীতে তিন দিনব্যাপী নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে জেলা প্রশাসন।

মূল আয়োজন রাজধানী ভিত্তিক হলেও কুষ্টিয়ার শিলাইদহকে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। ঢাকার বাইরে কুষ্টিয়ার শিলাইদহেই এবার জাতীয় পর্যায়ে অনুষ্ঠিত হবে মূল অনুষ্ঠান। জেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠানমালার বাইরেও এখানে বিস্তীর্ণ এলাকা জুড়ে বসেছে গ্রামীণ মেলা। পাঁচ দিনব্যাপী চলবে এই গ্রামীণ মেলা। কবির পদধুলির শিলাইদহ কুঠিবাড়ীতে হাজার-হাজার মানুষের ঢল নামবে।

জানা গেছে, শিলাইদহ কুঠিবাড়ীতেই বসে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর গীতাঞ্জলি অনুবাদ করে পেয়েছেন নোবেল পুরস্কার। এখানে বসে বলাকা, নৌকা ডুবিসহ রচনা করেছেন বিখ্যাত উপন্যাস, গল্প। অপরদিকে ‘আমার হিয়ার মাঝে লুকিয়ে আছে দেখতে আমি পাইনি’ এমন প্রায় ৩৬শ গানের বেশির ভাগ তিনি এখানে বসেই রচনা করেছেন। তাই প্রতি বছরের ন্যায় এবারও তিন দিনব্যাপী রবীন্দ্র জন্মবার্ষিকীতে রবীন্দ্র প্রেমীদের ভিড়ে মুখোরিত হয়ে উঠবে শিলাইদহ।

রবীন্দ্র গবেষক ড. সরোয়ার মোর্শেদ জানান, কুষ্টিয়ার শিলাইদহ রবীন্দ্রনাথকে বিশ্বকবির মর্যাদায় আসীন করেছিল। এখানকার পদ্মার প্রবাহমান সৌন্দর্য ও শিলাইদহের সবুজ বনানী রবীন্দ্রনাথের বিখ্যাত রচনাবলীকে সমৃদ্ধ করেছিল। আজ সেই শিলাইদহ যেন রবীন্দ্রনাথকে হাতছানি দিয়ে ডাকছে। তাই দেশের যেখানেই বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উদযাপিত হোক না কেন শিলাইদহের উদযাপনটা একটু ভিন্নমাত্রার।

কুঠিবাড়ীর কাস্টডিয়ান মুখলেছুর রহমান জানান, বিশ্বকবির ১৫৭ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীর ভেতরে মঞ্চ নির্মাণসহ শেষ মুহুর্তে চলছে আগাছা, ঘাস পরিষ্কারসহ ধুয়া-মোছার কাজ। উৎসবকে ঘিরে কুঠিবাড়ীর বাইরে চলছে তিন দিনব্যাপী রবীন্দ্র মেলার প্রস্তুতি।

এদিকে কদিন আগেই দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে দোকানিরা এসে দোকান নির্মাণে ব্যস্ত সময় পার করছেন। আগত দোকানীরা জানান, যদি প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হয় তাহলে মেলায় এবার ভালো কেনাবেচা হবে।

কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম মেহেদী হাসান জানান, তিন দিনব্যাপী এই উৎসবের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পোশাকধারী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি সাদা পোশাকধারী ডিবি ও ডিএসবি সদস্যরা কুঠিবাড়ী চত্বরে থাকবেন। সিসি ক্যামেরা দিয়ে পুরো এলাকা নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক মো. জহির রায়হান বলেন, বিশ্বকবির স্মৃতি বিজড়িত শিলাইদহে তিন দিনব্যাপী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রবীন্দ্র মেলার প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। আশা করি এবারের আয়োজন সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন হবে।

বিডিপ্রেস/আরজে

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীতে ৩ দিনের অনুষ্ঠান


বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীতে ৩ দিনের অনুষ্ঠান

মূল আয়োজন রাজধানী ভিত্তিক হলেও কুষ্টিয়ার শিলাইদহকে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। ঢাকার বাইরে কুষ্টিয়ার শিলাইদহেই এবার জাতীয় পর্যায়ে অনুষ্ঠিত হবে মূল অনুষ্ঠান। জেলা প্রশাসনের আয়োজনে অনুষ্ঠানমালার বাইরেও এখানে বিস্তীর্ণ এলাকা জুড়ে বসেছে গ্রামীণ মেলা। পাঁচ দিনব্যাপী চলবে এই গ্রামীণ মেলা। কবির পদধুলির শিলাইদহ কুঠিবাড়ীতে হাজার-হাজার মানুষের ঢল নামবে।

জানা গেছে, শিলাইদহ কুঠিবাড়ীতেই বসে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর গীতাঞ্জলি অনুবাদ করে পেয়েছেন নোবেল পুরস্কার। এখানে বসে বলাকা, নৌকা ডুবিসহ রচনা করেছেন বিখ্যাত উপন্যাস, গল্প। অপরদিকে ‘আমার হিয়ার মাঝে লুকিয়ে আছে দেখতে আমি পাইনি’ এমন প্রায় ৩৬শ গানের বেশির ভাগ তিনি এখানে বসেই রচনা করেছেন। তাই প্রতি বছরের ন্যায় এবারও তিন দিনব্যাপী রবীন্দ্র জন্মবার্ষিকীতে রবীন্দ্র প্রেমীদের ভিড়ে মুখোরিত হয়ে উঠবে শিলাইদহ।

রবীন্দ্র গবেষক ড. সরোয়ার মোর্শেদ জানান, কুষ্টিয়ার শিলাইদহ রবীন্দ্রনাথকে বিশ্বকবির মর্যাদায় আসীন করেছিল। এখানকার পদ্মার প্রবাহমান সৌন্দর্য ও শিলাইদহের সবুজ বনানী রবীন্দ্রনাথের বিখ্যাত রচনাবলীকে সমৃদ্ধ করেছিল। আজ সেই শিলাইদহ যেন রবীন্দ্রনাথকে হাতছানি দিয়ে ডাকছে। তাই দেশের যেখানেই বিশ্বকবির জন্মবার্ষিকী উদযাপিত হোক না কেন শিলাইদহের উদযাপনটা একটু ভিন্নমাত্রার।

কুঠিবাড়ীর কাস্টডিয়ান মুখলেছুর রহমান জানান, বিশ্বকবির ১৫৭ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কুঠিবাড়ীর ভেতরে মঞ্চ নির্মাণসহ শেষ মুহুর্তে চলছে আগাছা, ঘাস পরিষ্কারসহ ধুয়া-মোছার কাজ। উৎসবকে ঘিরে কুঠিবাড়ীর বাইরে চলছে তিন দিনব্যাপী রবীন্দ্র মেলার প্রস্তুতি।

এদিকে কদিন আগেই দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে দোকানিরা এসে দোকান নির্মাণে ব্যস্ত সময় পার করছেন। আগত দোকানীরা জানান, যদি প্রাকৃতিক দুর্যোগ না হয় তাহলে মেলায় এবার ভালো কেনাবেচা হবে।

কুষ্টিয়ার পুলিশ সুপার এস এম মেহেদী হাসান জানান, তিন দিনব্যাপী এই উৎসবের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পোশাকধারী আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পাশাপাশি সাদা পোশাকধারী ডিবি ও ডিএসবি সদস্যরা কুঠিবাড়ী চত্বরে থাকবেন। সিসি ক্যামেরা দিয়ে পুরো এলাকা নিয়ন্ত্রণের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

কুষ্টিয়ার জেলা প্রশাসক মো. জহির রায়হান বলেন, বিশ্বকবির স্মৃতি বিজড়িত শিলাইদহে তিন দিনব্যাপী সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রবীন্দ্র মেলার প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। আশা করি এবারের আয়োজন সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন হবে।

বিডিপ্রেস/আরজে