BDpress

কাঁচা মরিচের 'ঝাল' বেড়েই চলেছে

বিডিপ্রেস ডেস্ক

অ+ অ-
কাঁচা মরিচের 'ঝাল' বেড়েই চলেছে
সপ্তাহখানেক ধরে রাজধানীর বিভিন্ন খুচরা বাজারে দফায় দফায় কাঁচা মরিচের দাম বাড়ছে। বৃষ্টির অজুহাত দেখিয়ে কাঁচা মরিচ এখন বিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকা কেজি দরে। অথচ সপ্তাহখানেক আগে কাঁচা মরিচ বিক্রি হয়েছে ১৫০ টাকা ১৬০ টাকায়।

সপ্তাহের ব্যবধানে প্রতি কেজি কাঁচা মরিচের দাম ৪০ টাকা পর্যন্ত বেড়ে যাওয়ার পেছনে ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেট কাজ করছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্রেতারা।

আজ শুক্রবার সকালে রাজধানীর বিভিন্ন কাঁচাবাজার ঘুরে দেখা গেছে, সপ্তাহখানেক ধরে বাজারে দফায় দফায় দাম বেড়ে যেন কাঁচা মরিচের ঝালে ক্রেতাদের চোখে পানি এসে গেছে।

হঠাৎ করে কাঁচা মরিচের দাম এতে বেশি বেড়ে যাওয়ায় ক্রেতাদের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। তারা বলছেন কাঁচা মরিচের দামে যেন আগুন লেগেছে।

অন্যদিকে বিক্রেতারা বলছেন, বর্ষা মৌসুমের কারণে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে ঢাকায় যে পরিমাণ কাঁচা মরিচ এসেছে তা প্রতিদিনের চাহিদার তুলনায় অনেক কম। চাহিদা ও সরবরাহে ঘাটতির কারণে কাঁচা মরিচের দাম বেড়েছে।

তারা আরও বলেন, পাইকারী বাজারে কাঁচা মরিচের দাম বেড়েছে। তাই তারাও বেশি দামে বিক্রি করছেন। এখানে তাদের কিছু করার নেই।

তবে ক্রেতারা বলেছেন, সিজন শেষে দাম একটু বাড়তে পারে। তাই বলে সিজনের ৫০/৬০ টাকার কাঁচা মরিচ এখনই ২০০ টাকা হবে! তাহলে সারাবছর কাঁচা মরিচের দাম কত হবে?

বিক্রেতারা সিন্ডিকেট করে কাঁচা মরিচের দাম বাড়িয়েছেন অভিযোগ করে তারা আরও বলেন, প্রতিটি সবজি বিক্রেতার দোকানেই যথেষ্ট পরিমাণ কাঁচা মরিচের মজুদ আছে। এমনিতেই ৬০ টাকা কেজির নিচে কোনো সবজি মেলে না। তার ওপর কাঁচা মরিচের দাম এতো বেশি।

বিডিপ্রেস/আলী 

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

কাঁচা মরিচের 'ঝাল' বেড়েই চলেছে


কাঁচা মরিচের 'ঝাল' বেড়েই চলেছে

সপ্তাহের ব্যবধানে প্রতি কেজি কাঁচা মরিচের দাম ৪০ টাকা পর্যন্ত বেড়ে যাওয়ার পেছনে ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেট কাজ করছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্রেতারা।

আজ শুক্রবার সকালে রাজধানীর বিভিন্ন কাঁচাবাজার ঘুরে দেখা গেছে, সপ্তাহখানেক ধরে বাজারে দফায় দফায় দাম বেড়ে যেন কাঁচা মরিচের ঝালে ক্রেতাদের চোখে পানি এসে গেছে।

হঠাৎ করে কাঁচা মরিচের দাম এতে বেশি বেড়ে যাওয়ায় ক্রেতাদের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। তারা বলছেন কাঁচা মরিচের দামে যেন আগুন লেগেছে।

অন্যদিকে বিক্রেতারা বলছেন, বর্ষা মৌসুমের কারণে দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে ঢাকায় যে পরিমাণ কাঁচা মরিচ এসেছে তা প্রতিদিনের চাহিদার তুলনায় অনেক কম। চাহিদা ও সরবরাহে ঘাটতির কারণে কাঁচা মরিচের দাম বেড়েছে।

তারা আরও বলেন, পাইকারী বাজারে কাঁচা মরিচের দাম বেড়েছে। তাই তারাও বেশি দামে বিক্রি করছেন। এখানে তাদের কিছু করার নেই।

তবে ক্রেতারা বলেছেন, সিজন শেষে দাম একটু বাড়তে পারে। তাই বলে সিজনের ৫০/৬০ টাকার কাঁচা মরিচ এখনই ২০০ টাকা হবে! তাহলে সারাবছর কাঁচা মরিচের দাম কত হবে?

বিক্রেতারা সিন্ডিকেট করে কাঁচা মরিচের দাম বাড়িয়েছেন অভিযোগ করে তারা আরও বলেন, প্রতিটি সবজি বিক্রেতার দোকানেই যথেষ্ট পরিমাণ কাঁচা মরিচের মজুদ আছে। এমনিতেই ৬০ টাকা কেজির নিচে কোনো সবজি মেলে না। তার ওপর কাঁচা মরিচের দাম এতো বেশি।

বিডিপ্রেস/আলী