BDpress

দুই জেলায় প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি পেলেন ৩১৭ জন

নিজস্ব প্রতিবেদক

অ+ অ-
দুই জেলায় প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি পেলেন ৩১৭ জন
দুই জেলায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক পদে ৩১৭ জনকে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। বর্তমানে তারা নড়াইল ও হবিগঞ্জের বিভিন্ন বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক হিসেবে কর্মরত রয়েছেন। গত ২৩ ও ২৬ জুলাই চলতি দায়িত্বে প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি সংক্রান্ত আলাদা দুটি আদেশ জারি করেছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়।

আদেশে বলা হয়েছে, দুই জেলায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শূন্য পদে ৩১৭ জনকে প্রধান শিক্ষক হিসেবে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। এরমধ্যে নড়াইলের কালিয়া, নড়াইল সদর ও লোহাগড়া উপজেলায ১৪২ জন এবং হবিগঞ্জের বাহুবল, নবীগঞ্জ, আজমিরীগঞ্জ, চুনারুঘাট, হরিগঞ্জ সদর, বানিয়াচং ও লাখাই উপজেলায় ১৭৫ জন। পদোন্নতিপ্রাপ্ত শিক্ষকদের নির্দেশনা জারির পঞ্চম কর্মদিবসের মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগদানের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণ শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. এ এফ এম মনজুর কাদির বলেন, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শূন্য পদে প্রধান শিক্ষকের চলতি দায়িত্বে পদোন্নতি দেয়া হচ্ছে। গত ২৩ জুলাই হবিগঞ্জ এবং ২৬ জুলাই নড়াইলের মোট ৩১৭ শিক্ষককে প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। 

তিনি বলেন, ইতিমধ্যে ৩৪ জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক শূন্য পদে চলতি দায়িত্বে বসানো হয়েছে। অন্যান্য জেলা থেকে শিক্ষকদের গ্রেডেশন তালিকা পেলে সেখানেও প্রধান শিক্ষকের শূন্য পদে সহকারী শিক্ষকদের চলতি দায়িত্বে বসানো হবে।

উল্লেখ্য, গত ২৩ মে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোন্তফিজুর রহমান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের শূন্য স্থানে জ্যেষ্ঠ সহকারী শিক্ষকদের দায়িত্ব দেয়ার ঘোষণা দেন। এরপর থেকে প্রধান শিক্ষক চলতি দায়িত্বে পদোন্নতি দেয়া হচ্ছে।

বিডিপ্রেস/আরজে

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

দুই জেলায় প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি পেলেন ৩১৭ জন


দুই জেলায় প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি পেলেন ৩১৭ জন

আদেশে বলা হয়েছে, দুই জেলায় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শূন্য পদে ৩১৭ জনকে প্রধান শিক্ষক হিসেবে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। এরমধ্যে নড়াইলের কালিয়া, নড়াইল সদর ও লোহাগড়া উপজেলায ১৪২ জন এবং হবিগঞ্জের বাহুবল, নবীগঞ্জ, আজমিরীগঞ্জ, চুনারুঘাট, হরিগঞ্জ সদর, বানিয়াচং ও লাখাই উপজেলায় ১৭৫ জন। পদোন্নতিপ্রাপ্ত শিক্ষকদের নির্দেশনা জারির পঞ্চম কর্মদিবসের মধ্যে নতুন কর্মস্থলে যোগদানের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে প্রাথমিক ও গণ শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. এ এফ এম মনজুর কাদির বলেন, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শূন্য পদে প্রধান শিক্ষকের চলতি দায়িত্বে পদোন্নতি দেয়া হচ্ছে। গত ২৩ জুলাই হবিগঞ্জ এবং ২৬ জুলাই নড়াইলের মোট ৩১৭ শিক্ষককে প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি দেয়া হয়েছে। 

তিনি বলেন, ইতিমধ্যে ৩৪ জেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক শূন্য পদে চলতি দায়িত্বে বসানো হয়েছে। অন্যান্য জেলা থেকে শিক্ষকদের গ্রেডেশন তালিকা পেলে সেখানেও প্রধান শিক্ষকের শূন্য পদে সহকারী শিক্ষকদের চলতি দায়িত্বে বসানো হবে।

উল্লেখ্য, গত ২৩ মে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মোন্তফিজুর রহমান সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের শূন্য স্থানে জ্যেষ্ঠ সহকারী শিক্ষকদের দায়িত্ব দেয়ার ঘোষণা দেন। এরপর থেকে প্রধান শিক্ষক চলতি দায়িত্বে পদোন্নতি দেয়া হচ্ছে।

বিডিপ্রেস/আরজে