BDpress

অভিভাবকদের আগে ভালো মানুষ হতে হবে : আইজিপি

নিজস্ব প্রতিবেদক

অ+ অ-
অভিভাবকদের আগে ভালো মানুষ হতে হবে : আইজিপি
বাংলাদেশ পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বলেছেন, আমরা অভিভাবকরা আমাদের সন্তানদের কী শিক্ষা দিচ্ছি সেটার উপরই নির্ভর করছে তাদের ভবিষ্যত। ওদেরকে অবুঝ ভাববেন না। শিশুদের শুধু ভালো মানুষ হবার কথা না বলে অভিভাবকদের নিজেদের আগে ভালো মানুষ হতে হবে। কারণ আমরা যা বলছি তার চেয়ে যা করছি তাই বেশি অনুসরণ করে ওরা।

শনিবার সকাল পৌনে ১১টায় রাজধানীর মিরপুরস্থ পুলিশ স্টাফ কলেজে ‘বাংলাদেশ পুলিশ মেধাবৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান ২০১৮’ শীর্ষক ওই অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে এসব বলেন তিনি।

অতিরিক্ত আইজিপি (এইচআরএম) মো. মহসিন হোসেনের সভাপতিত্বে বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট আয়োজিত ওই অনুষ্ঠানে এসএসসি, দাখিল ও সমমানের পরীক্ষায় ভালো ফলাফলের জন্য পুলিশ পরিবারের ৩৬১ জন কৃতি সন্তানকে বৃত্তি প্রদান করেন আইজিপি।

পুলিশ পরিবারের কৃতি সন্তানদের বৃত্তি প্রদান শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইজিপি বলেন, সাফল্যের স্বীকৃতি সুস্থ প্রতিযোগিতা তৈরি করে। ওদেরকে (শিক্ষার্থী) আরও বেশি অনুপ্রাণিত করতে হবে। কারণ ভবিষ্যতে আমাদের পরিচয়, সম্মান নির্ভর করছে ওদের উপর। ওদের কর্মে অভিভাবকরা উজ্জ্বল হয়।আমরা পুলিশ সদস্যরা পরিবার ও সন্তানদের সময় দিতে পারি কম। আমাদের মতো সরকারি চাকরীজীবিরাও। আমাদের সন্তানদের মানুষের মতো মানুষ হবার ক্ষেত্রে মূল ভূমিকা তো গর্বিত মা’দের। তবে বাবার আদর্শ, শিক্ষা এবং কর্ম প্রভাবিত করে আমাদের সন্তানদের। অভিভাবকদের উচিত ওদের সাথে, ওদের সামনে, গোচরে, অগোচরে নৈতিক কর্মের দৃষ্টান্ত রাখা। দিন শেষে আপনার কথা হয়, আপনি যা করছেন সন্তান সেটাই গ্রহণ করছে।

কৃতি শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে আইজিপি বলেন, ‘ভালো মানুষ হতে হবে। সেজন্য মানবিক বিকাশ ঘটাতে হবে। বাংলাদেশকে চিনতে হবে। বাংলাদেশকে চিনতে ও চেনাতে বঙ্গবন্ধু, দেশের ইতিহাস, সংস্কৃতি ও অভ্যুদ্বয়ের ইতিহাস জানতে হবে। পরীক্ষার খাতায় ভালো লিখে ভালো রেজাল্ট করাই জীবনের সব কিছু নয়, বরং পদে পদে পরীক্ষা দিতে হবে। জীবনের স্তরে স্তরে পরীক্ষায় পাস করতে পারাই ভালো মানুষ হয়ে ওঠার সিঁড়ি।’

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমির প্রিন্সিপাল মোহাম্মদ নজিবুর রহমান বলেন, ‘হে কৃতি সন্তানেরা, তোমাদের মানুষের মতো মানুষ হতে হবে। তোমরা আজই সিদ্ধান্ত নাও কি হতে চাও। নেতা হওয়া সহজ, কিন্তু ভালো মানুষ হওয়া কঠিন। সমাজের চারদিকে ভালো মানুষ থাকার জন্য বিপদ তৈরি হয়েছে। টাকা বেড়েছে, কমেছে শান্তি। সোনার মানুষ হতে গেলে এসব মোকাবেলার চ্যালেঞ্জ নিতে হবে।’

একই অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, ‘বিশ্বের কোথাও বাংলাদেশ পুলিশের ন্যায় কর্মঘণ্টার বাইরে এতো বেশি পরিশ্রম করতে হয় না। এরপরও অহেতুক পুলিশকে নিয়ে নানা সমালোচনা। পুলিশকে নিয়ে এতো এতো সমালোচনা ও বিরোধিতা তা কৃতিত্বের সাথে তোমাদের জবাব দিতে হবে, এভাবেই সফলতার মধ্য দিয়ে।’

এবার পুলিশ পরিবারের ৩৬১ কৃতি শিক্ষার্থীর মধ্যে এসএসসি ৩৫৪ জন (ছেলে ১৭৫ ও মেয়ে ১৭৯), দাখিল ৪ জন, ও লেভেল ৩ জনকে (ছেলে ২, মেয়ে ১) সম্মাননা ক্রেস্ট, সার্টিফিকেট ও নগদ অর্থ প্রদান করা হয়।

বিডিপ্রেস/আরজে

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

অভিভাবকদের আগে ভালো মানুষ হতে হবে : আইজিপি


অভিভাবকদের আগে ভালো মানুষ হতে হবে : আইজিপি

শনিবার সকাল পৌনে ১১টায় রাজধানীর মিরপুরস্থ পুলিশ স্টাফ কলেজে ‘বাংলাদেশ পুলিশ মেধাবৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান ২০১৮’ শীর্ষক ওই অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে এসব বলেন তিনি।

অতিরিক্ত আইজিপি (এইচআরএম) মো. মহসিন হোসেনের সভাপতিত্বে বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট আয়োজিত ওই অনুষ্ঠানে এসএসসি, দাখিল ও সমমানের পরীক্ষায় ভালো ফলাফলের জন্য পুলিশ পরিবারের ৩৬১ জন কৃতি সন্তানকে বৃত্তি প্রদান করেন আইজিপি।

পুলিশ পরিবারের কৃতি সন্তানদের বৃত্তি প্রদান শেষে প্রধান অতিথির বক্তব্যে আইজিপি বলেন, সাফল্যের স্বীকৃতি সুস্থ প্রতিযোগিতা তৈরি করে। ওদেরকে (শিক্ষার্থী) আরও বেশি অনুপ্রাণিত করতে হবে। কারণ ভবিষ্যতে আমাদের পরিচয়, সম্মান নির্ভর করছে ওদের উপর। ওদের কর্মে অভিভাবকরা উজ্জ্বল হয়।আমরা পুলিশ সদস্যরা পরিবার ও সন্তানদের সময় দিতে পারি কম। আমাদের মতো সরকারি চাকরীজীবিরাও। আমাদের সন্তানদের মানুষের মতো মানুষ হবার ক্ষেত্রে মূল ভূমিকা তো গর্বিত মা’দের। তবে বাবার আদর্শ, শিক্ষা এবং কর্ম প্রভাবিত করে আমাদের সন্তানদের। অভিভাবকদের উচিত ওদের সাথে, ওদের সামনে, গোচরে, অগোচরে নৈতিক কর্মের দৃষ্টান্ত রাখা। দিন শেষে আপনার কথা হয়, আপনি যা করছেন সন্তান সেটাই গ্রহণ করছে।

কৃতি শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে আইজিপি বলেন, ‘ভালো মানুষ হতে হবে। সেজন্য মানবিক বিকাশ ঘটাতে হবে। বাংলাদেশকে চিনতে হবে। বাংলাদেশকে চিনতে ও চেনাতে বঙ্গবন্ধু, দেশের ইতিহাস, সংস্কৃতি ও অভ্যুদ্বয়ের ইতিহাস জানতে হবে। পরীক্ষার খাতায় ভালো লিখে ভালো রেজাল্ট করাই জীবনের সব কিছু নয়, বরং পদে পদে পরীক্ষা দিতে হবে। জীবনের স্তরে স্তরে পরীক্ষায় পাস করতে পারাই ভালো মানুষ হয়ে ওঠার সিঁড়ি।’

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমির প্রিন্সিপাল মোহাম্মদ নজিবুর রহমান বলেন, ‘হে কৃতি সন্তানেরা, তোমাদের মানুষের মতো মানুষ হতে হবে। তোমরা আজই সিদ্ধান্ত নাও কি হতে চাও। নেতা হওয়া সহজ, কিন্তু ভালো মানুষ হওয়া কঠিন। সমাজের চারদিকে ভালো মানুষ থাকার জন্য বিপদ তৈরি হয়েছে। টাকা বেড়েছে, কমেছে শান্তি। সোনার মানুষ হতে গেলে এসব মোকাবেলার চ্যালেঞ্জ নিতে হবে।’

একই অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে ডিএমপি কমিশনার মো. আছাদুজ্জামান মিয়া বলেন, ‘বিশ্বের কোথাও বাংলাদেশ পুলিশের ন্যায় কর্মঘণ্টার বাইরে এতো বেশি পরিশ্রম করতে হয় না। এরপরও অহেতুক পুলিশকে নিয়ে নানা সমালোচনা। পুলিশকে নিয়ে এতো এতো সমালোচনা ও বিরোধিতা তা কৃতিত্বের সাথে তোমাদের জবাব দিতে হবে, এভাবেই সফলতার মধ্য দিয়ে।’

এবার পুলিশ পরিবারের ৩৬১ কৃতি শিক্ষার্থীর মধ্যে এসএসসি ৩৫৪ জন (ছেলে ১৭৫ ও মেয়ে ১৭৯), দাখিল ৪ জন, ও লেভেল ৩ জনকে (ছেলে ২, মেয়ে ১) সম্মাননা ক্রেস্ট, সার্টিফিকেট ও নগদ অর্থ প্রদান করা হয়।

বিডিপ্রেস/আরজে