BDpress

শীতের সকালে গরম গরম ক্ষীর পাটিশাপটা

বিডিপ্রেস ডেস্ক

অ+ অ-
শীতের সকালে গরম গরম ক্ষীর পাটিশাপটা
শীতের সকালে একটু গরম গরম পিঠে-পুলি না হলে কি জমে? পিঠা তৈরি যতটা কঠিন মনে করেন অনেকে, তেমনটা কিন্তু একদম নয়। জানিয়ে দিচ্ছি সুমনা সুমির রেসিপি। এই রেসিপিতে পাটিসাপটা তৈরি হয়ে যাবে একদম সহজ একটি কাজ। পিঠা ফাটবে না, প্যানে লেগে যাবে না বা ভেঙে যাবে না। প্রতিবারেই তৈরি করতে পারবেন দারুণ সুন্দর ও সুস্বাদু পাটিসাপটা।

ক্ষীরসা তৈরিতে যা লাগবে

    তরল দুধ ২ লিটার
    চালের গুঁড়ো ১ টেবিল চামচ (চিনিগুড়া চাল)
    ঘি ১ টেবিল চামচ
    কনডেন্সড মিল্ক ১কাপ অথবা (১কাপ গুঁড়োদুধ ও চিনি পরিমাণ মত)

প্রনালি

    একটি ভারী তলার পাত্রে দুধ ঘন করুন ( কমে ১/৪ হয়ে যাবে)।
    এখন কনডেনসড মিল্ক ও চালের গুঁড়ো মিশিয়ে দুধে দিয়ে অনবরত নাড়ুন।
    কিছুটা ঘন হয়ে গেলে ১ টেবিল চামচ ঘি দিয়ে অনবরত নাড়ুন।
    পাত্রে লেগে আসতে থাকলে চুলা বন্ধ করুন। ঠান্ডা হলে মিশ্রণটি আর গাড় হবে।

ছবি :সুমনা সুমি

পাটিসাপটা তৈরিতে যা লাগবে

    হাল্কা গরম পানি বা দুধ ৫ কাপ বা পরিমাণ মত
    সুজি ১/২ কাপ
    ময়দা ১ কাপ
    চালের গুঁড়ো ২ কাপ
    গুড় ১ কাপ বা পরিমাণ মত (গুড়ের বদলে চিনি দিতে পারেন)
    ঘি ১ টেবিল চামচ(গলানো)

প্রনালি

    একটি পাত্রে গুড় ও ২ কাপ পানি মিশিয়ে চুলায় দিয়ে ফুটিয়ে গুড় গলিয়ে নিন।
    একটি পাত্রে সুজি, চালের গুঁড়ো, ময়দা ও একটু লবণ দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিতে হবে।
    এখন গুড়ের পানি দিন। আর ১কাপ করে হাল্কা গরম দুধ বা পানি মিশাতে থাকুন। কোনো দানা যেন না থাকে। ব্যাটারটি কিছুটা পাতলা হবে।৩০ মিনিট এভাবে রেখে দিন।৩০ মিনিট পর দরকার হলে আরো পানি দিন কারণ ব্যাটার ঘন হলে পিঠা ফেটে যাবে।
    ফ্রাইপ্যান গরম করে চুলার আঁচ একদম অল্প করে দিন। ১/২ চা চামচ তেল ব্রাশ করে অল্প আঁচে ১/৪ কাপ ব্যাটার দিয়ে চারিদিকে গোল বা লম্বাটে করে ছড়িয়ে দিন। লম্বাটে করলে পিঠার ভাঁজ বেশি পড়বে। এতে পিঠা দেখতে সুন্দর লাগবে আর ফাটবেও না।
    প্যানকেক রং পালটে হয়ে এলে এর একপাশে লম্বা করে ক্ষীরসা দিয়ে রোল করে নিন।
    প্লেটে তুলে আবার তেল ব্রাশ করে বাকি পাটিসাপটা বানাতে হবে।
বিডিপ্রেস/আলী

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

শীতের সকালে গরম গরম ক্ষীর পাটিশাপটা


শীতের সকালে গরম গরম ক্ষীর পাটিশাপটা

ক্ষীরসা তৈরিতে যা লাগবে

    তরল দুধ ২ লিটার
    চালের গুঁড়ো ১ টেবিল চামচ (চিনিগুড়া চাল)
    ঘি ১ টেবিল চামচ
    কনডেন্সড মিল্ক ১কাপ অথবা (১কাপ গুঁড়োদুধ ও চিনি পরিমাণ মত)

প্রনালি

    একটি ভারী তলার পাত্রে দুধ ঘন করুন ( কমে ১/৪ হয়ে যাবে)।
    এখন কনডেনসড মিল্ক ও চালের গুঁড়ো মিশিয়ে দুধে দিয়ে অনবরত নাড়ুন।
    কিছুটা ঘন হয়ে গেলে ১ টেবিল চামচ ঘি দিয়ে অনবরত নাড়ুন।
    পাত্রে লেগে আসতে থাকলে চুলা বন্ধ করুন। ঠান্ডা হলে মিশ্রণটি আর গাড় হবে।

ছবি :সুমনা সুমি

পাটিসাপটা তৈরিতে যা লাগবে

    হাল্কা গরম পানি বা দুধ ৫ কাপ বা পরিমাণ মত
    সুজি ১/২ কাপ
    ময়দা ১ কাপ
    চালের গুঁড়ো ২ কাপ
    গুড় ১ কাপ বা পরিমাণ মত (গুড়ের বদলে চিনি দিতে পারেন)
    ঘি ১ টেবিল চামচ(গলানো)

প্রনালি

    একটি পাত্রে গুড় ও ২ কাপ পানি মিশিয়ে চুলায় দিয়ে ফুটিয়ে গুড় গলিয়ে নিন।
    একটি পাত্রে সুজি, চালের গুঁড়ো, ময়দা ও একটু লবণ দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিতে হবে।
    এখন গুড়ের পানি দিন। আর ১কাপ করে হাল্কা গরম দুধ বা পানি মিশাতে থাকুন। কোনো দানা যেন না থাকে। ব্যাটারটি কিছুটা পাতলা হবে।৩০ মিনিট এভাবে রেখে দিন।৩০ মিনিট পর দরকার হলে আরো পানি দিন কারণ ব্যাটার ঘন হলে পিঠা ফেটে যাবে।
    ফ্রাইপ্যান গরম করে চুলার আঁচ একদম অল্প করে দিন। ১/২ চা চামচ তেল ব্রাশ করে অল্প আঁচে ১/৪ কাপ ব্যাটার দিয়ে চারিদিকে গোল বা লম্বাটে করে ছড়িয়ে দিন। লম্বাটে করলে পিঠার ভাঁজ বেশি পড়বে। এতে পিঠা দেখতে সুন্দর লাগবে আর ফাটবেও না।
    প্যানকেক রং পালটে হয়ে এলে এর একপাশে লম্বা করে ক্ষীরসা দিয়ে রোল করে নিন।
    প্লেটে তুলে আবার তেল ব্রাশ করে বাকি পাটিসাপটা বানাতে হবে।
বিডিপ্রেস/আলী