BDpress

সাফ ফুটবলের জন্য বাংলাদেশ দল ঘোষণা

ক্রীড়া ডেস্ক

অ+ অ-
সাফ ফুটবলের জন্য বাংলাদেশ দল ঘোষণা
আগামীকাল থেকে বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে নেপাল বনাম পাকিস্তানের ম্যাচ দিয়ে মাঠে গড়াবে দক্ষিণ এশিয়ার বিশ্বকাপ খ্যাত সাফ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপ।

সাফের ১২তম আসরের জন্য সোমবার বিকেলে বাফুফে কার্যালয়ে ২০ সদস্যের বাংলাদেশ দল ঘোষণা করে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন।এই দলে জায়গা পাননি মিডফিল্ডার আব্দুল্লাহ ও ফজলে রাব্বি। যুব দলের জাফর ইকবালও এই দলে জায়গা পাননি। জায়গা পাননি গোলরক্ষক আনিসুর রহমান।

এদিকে দল ঘোষণার পর ২০১৬ সালে ভুটানের সঙ্গে ম্যাচ হারা নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অধিনায়ক নাসির বলেন, আমাদের প্রতিপক্ষ কে সেটা নিয়ে ভাবছি না। ম্যাচ বাই ম্যাচ জয় করে প্রথম রাউন্ডে পয়েন্ট নিতে চাই। 

অধিনায়কের এমন উত্তরের প্রেক্ষিতে পাশে বসা কোচ জেমি ডে বলেন, আমাদের দলে মোট ২০ জন অধিনায়ক রয়েছেন। প্রত্যেকেই নিজেদের মতো সেরা। 

এবার নিয়ে তৃতীয়বারের মতো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের আসর বসছে বাংলাদেশে। এর আগে ২০০৩ ও ২০০৯ সালে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হয়েছিল এই টুর্নামেন্ট। ২০০৩ সালে প্রথমবারের মতো স্বাগতিক হয়েই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে বাংলাদেশ। কিন্তু ২০০৯ সালে সেমিফাইনাল থেকে বিদায় নিতে হয় লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।

এবারের আসর সাফের ইতিহাসে ১২তম আসর। এরমধ্যে সর্বোচ্চ ৭বার শিরোপা ঘরে তুলেছে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত। বাকি চারবারের মধ্যে বাংলাদেশ, আফগানিস্তান, মালয়েশিয়া ও শ্রীলংকা একবার করে শিরোপা বগলদাবা করে।সবশেষ তিন টুর্নামেন্ট থেকে বাংলাদেশকে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিতে হয়। পাকিস্তান, নেপাল ও ভুটান একবারও শিরোপা ঘরে তুলতে পারেনি। 

সাফ সুজুকি কাপে ২০ সদস্যের বাংলাদেশ দল

আশরাফুল ইসলাম রানা, তপু বর্মন, ওয়ালি ফয়সাল, শহীদুল ইসলাম সোহেল, টুটুল হোসেন বাদশা, বিশ্বনাথ ঘোষ, সুশান্ত ত্রিপুরা, নাসির চৌধুরী, মাশুক মিয়া জনি, মাহবুবুর রহমান সুফিল, ফয়সাল মাহমুদ, জামাল ভূঁইয়া, আতিকুর রহমান ফাহাদ, বিপলু আহমেদ, মামুনুল ইসলাম, ইমন মাহমুদ বাবু, সোহেল রানা, শাখাওয়াত রনি, রবিউল হাসান ও সাদ উদ্দীন।

বিডিপ্রেস/আরজে

এ সম্পর্কিত অন্যান্য খবর

BDpress

সাফ ফুটবলের জন্য বাংলাদেশ দল ঘোষণা


সাফ ফুটবলের জন্য বাংলাদেশ দল ঘোষণা

সাফের ১২তম আসরের জন্য সোমবার বিকেলে বাফুফে কার্যালয়ে ২০ সদস্যের বাংলাদেশ দল ঘোষণা করে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন।এই দলে জায়গা পাননি মিডফিল্ডার আব্দুল্লাহ ও ফজলে রাব্বি। যুব দলের জাফর ইকবালও এই দলে জায়গা পাননি। জায়গা পাননি গোলরক্ষক আনিসুর রহমান।

এদিকে দল ঘোষণার পর ২০১৬ সালে ভুটানের সঙ্গে ম্যাচ হারা নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে অধিনায়ক নাসির বলেন, আমাদের প্রতিপক্ষ কে সেটা নিয়ে ভাবছি না। ম্যাচ বাই ম্যাচ জয় করে প্রথম রাউন্ডে পয়েন্ট নিতে চাই। 

অধিনায়কের এমন উত্তরের প্রেক্ষিতে পাশে বসা কোচ জেমি ডে বলেন, আমাদের দলে মোট ২০ জন অধিনায়ক রয়েছেন। প্রত্যেকেই নিজেদের মতো সেরা। 

এবার নিয়ে তৃতীয়বারের মতো সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের আসর বসছে বাংলাদেশে। এর আগে ২০০৩ ও ২০০৯ সালে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত হয়েছিল এই টুর্নামেন্ট। ২০০৩ সালে প্রথমবারের মতো স্বাগতিক হয়েই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করে বাংলাদেশ। কিন্তু ২০০৯ সালে সেমিফাইনাল থেকে বিদায় নিতে হয় লাল-সবুজ জার্সিধারীদের।

এবারের আসর সাফের ইতিহাসে ১২তম আসর। এরমধ্যে সর্বোচ্চ ৭বার শিরোপা ঘরে তুলেছে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত। বাকি চারবারের মধ্যে বাংলাদেশ, আফগানিস্তান, মালয়েশিয়া ও শ্রীলংকা একবার করে শিরোপা বগলদাবা করে।সবশেষ তিন টুর্নামেন্ট থেকে বাংলাদেশকে গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিতে হয়। পাকিস্তান, নেপাল ও ভুটান একবারও শিরোপা ঘরে তুলতে পারেনি। 

সাফ সুজুকি কাপে ২০ সদস্যের বাংলাদেশ দল

আশরাফুল ইসলাম রানা, তপু বর্মন, ওয়ালি ফয়সাল, শহীদুল ইসলাম সোহেল, টুটুল হোসেন বাদশা, বিশ্বনাথ ঘোষ, সুশান্ত ত্রিপুরা, নাসির চৌধুরী, মাশুক মিয়া জনি, মাহবুবুর রহমান সুফিল, ফয়সাল মাহমুদ, জামাল ভূঁইয়া, আতিকুর রহমান ফাহাদ, বিপলু আহমেদ, মামুনুল ইসলাম, ইমন মাহমুদ বাবু, সোহেল রানা, শাখাওয়াত রনি, রবিউল হাসান ও সাদ উদ্দীন।

বিডিপ্রেস/আরজে